সোনিয়া-মমতা বৈঠকের পর তৃণমূলের নতুন সিদ্ধান্ত


সোনিয়া-মমতার বুধবারের সাক্ষাতের আগেও সংসদে বসেছিল বিরোধী দলগুলির বৈঠক। সেই বৈঠকে পৌরহিত্য করেন কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধী। কিন্তু বৈঠকে হাজির হয়নি তৃণমূল। অবশেষে এবার নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। মমতা-সোনিয়া বৈঠকের পর সংসদে বিরোধী দলগুলির বৈঠকে যোগ দিয়েছে তৃণমূল। খবর হিন্দুস্তান টাইমসের।

খবরে বলা হয়, শুক্রবার রাজ্যসভা ও লোকসভায় ফ্লোর ম্যানেজমেন্ট নিয়ে বিরোধী দলগুলির বৈঠকে হাজির ছিলেন তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়। সোনিয়া – মমতা সাক্ষাতের পর বৈঠকে তৃণমূলের যোগদান বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছেন অনেকে। অনেকের দাবি, গত বৈঠকে হাজির না থাকায় তৃণমূলই সত্যিই বিজেপির বিরোধিতা করতে চায় কি না তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিল বামেরা। সেই চাপেই এদিনের বৈঠকে যোগ দিয়েছেন সৌগত রায়।

গত বুধবার সোনিয়া – মমতা সাক্ষাতের আগেও সংসদে বসেছিল বিরোধী দলগুলির বৈঠক। সেই বৈঠকে পৌরহিত্য করেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। কিন্তু বৈঠকে হাজির হয়নি তৃণমূল। বৈঠকে পেগাসাস ইস্যুতে কেন্দ্রকে কীভাবে চাপে ফেল হবে তার কৌশল তৈরি হয়। সেই বৈঠকে তৃণমূল গরহাজির থাকায় তারা সত্যিই বিজেপি বিরোধিতা করতে চায় কি না তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে সরব হয় বামেরা। তার পর এদিনের বৈঠকে দেখা গেল তৃণমূলকে।

হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, নিজের রাজনৈতিক কৃতিত্ব অন্যের সঙ্গে ভাগ করতে নারাজ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নিজেকে সবার থেকে আলাদা ভাবেন তিনি। তাই বিজেপি বিরোধিতা করলেও বিরোধী দলগুলির বৈঠকে অনেক সময়ই দেখা যায় না তৃণমূলকে। সম্ভবত নয়া দিল্লিতে মমতার সঙ্গে সাক্ষাতে তাঁকে বিরোধী ঐক্যের গুরুত্ব বোঝাতে পেরেছেন সোনিয়া গান্ধী। যার জেরে বিরোধী দলের বৈঠকে দেখা গিয়েছে তৃণমূলকে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *