মাশরাফিকে ছাড়িয়ে অনন্য উচ্চতায় সাকিব

জিম্বাবুয়ের ব্যাটসম্যানদের চেপে ধরেছে বাংলাদেশের বোলাররা। টাইগারদের বধ করতে পেসবান্ধব উইকেট বানিয়েছিল স্বাগতিকরা। আর সেই উইকেটেই ঘূর্ণিজাদু দেখিয়ে চলেছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

ব্যাট হাতে তেমন অবদান না রাখতে পারলেও বল হাতে পুষিয়ে দিচ্ছেন। ইতোমধ্যে তিনজন ব্যাটসম্যানকে সাজঘরের পথ দেখিয়েছেন সাকিব।

৭ ওভার করে ২৮ রানের খরচায় অধিনায়ক টেলর, রায়ান বার্ল ও ব্লেসিং মুজারাবানিকে ফিরিয়েছেন তিনি।

খেলার এ মুহূর্তে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৭ উইকেটে খুইয়ে ১০৮ রান। লক্ষ্যে পৌঁছুতে আরো ১৬৭ রান করতে হবে তাদের।

আর বাংলাদেশের প্রয়োজন আরো ৩ উইকেটে। বাকি ২৬ ওভারে টেলএন্ডারদের জন্য এতো রান পূরণ প্রায় অসাধ্য।

সে অর্থে জয়ের পথে রয়েছে বাংলাদেশ। তবে দ্রুত উইকেট ফেলে দিলে বড় ব্যবধানের জয়ের রেকর্ডে নাম লিখবে তামিম বাহিনী।

ব্যাট হাতে না পারলেও বল হাতে ঠিকই নিজের জাত চেনালেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

৭ ওভারে ২৮ রানের খরচায় ৩ উইকেট শিকার করেছেন জিম্বাবুয়ের ইতোমধ্যে। স্বাগতিকদের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে সাকিবের প্রথম শিকার দলটির অধিনায়ক ব্রেন্ডন টেলর।

পাওয়ার প্লেতে সাকিব ছিলেন খরুচে। তার দুই ওভারেই ব্রেন্ডন টেলরের বাউন্ডারি হাঁকান। তবে দমে যাওয়ার পাত্র নন সাকিব। বোলিংয়ে ফিরে মধুর প্রতিশোধ নিলেন বাঁহাতি স্পিনার। ফিরিয়ে দিলেন টেলরকে।

৩১ বলে ৩ বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ২৪ রান করে বিপজ্জনক হয়ে উঠছিলেন টেলর।

নিজের তৃতীয় ওভারের দ্বিতীয় বলটি মারতে গিয়ে হাওয়ায় ভাসিয়ে দেন টেলর। আর তা শর্ট ফাইন লেগে দাঁড়ানো তাসকিন তা লুফে নেন।

আর এ উইকেটের পর বাংলাদেশের সফলতম অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার পাশে নাম লেখালেন সাকিব।

বাংলাদেশর বোলারদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ২৭০ ওয়ানডে উইকেট পাওয়া মাশরাফি বিন মুর্তজার পাশে বসলেন সাকিব।

তবে এখানে মাশরাফিকে ছাড়িয়ে যান সাকিব। কারণ সাকিবের সব উইকেটই দেশের হয়ে। আর নড়াইল এক্সপ্রেস একটি উইকেট পেয়েছিলেন এশিয়া একাদশের হয়ে। তাই এই পেসারকে ছাড়িয়ে দেশের হয়ে সর্বোচ্চ উইকেট এখন সাকিবের।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *